আপডেট

x

সেহরির-ইফতারে ছিন্নমূল মানুষের পাশে ছুটে যান ছাত্রদল নেতা মোহসীন হৃদয়

বৃহস্পতিবার, ২৮ এপ্রিল ২০২২ | ৯:৪৬ অপরাহ্ণ | 159 বার

সেহরির-ইফতারে ছিন্নমূল মানুষের পাশে ছুটে যান ছাত্রদল নেতা মোহসীন হৃদয়

পবিত্র মাহে রমজানের প্রথম থেকেই ছিন্নমূলের হতদরিদ্র মানুষ গুলোর পাশে সেহরি ও ইফতার নিয়ে দাঁড়িয়েছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা ছাত্রদলের সদস্য সচিব মোহসীন হৃদয়। শুধু তা ই নয়, শিশুদের সাথে ঈদ আনন্দ ভাগাভাগি করে নিতে নতুন কাপড় ও হতদরিদ্র পরিবার গুলোতে ঈদের দিনের বাজার বিতরণ করেছেন। নিজে তার সহপাঠীদের নিয়ে শহরের একপ্রান্ত থেকে আরেক প্রান্তে ঘুরে ঘুরে হতদরিদ্র মানুষ গুলোর মুখে তুলে দিয়েছেন অন্ন।


খোঁজ নিয়ে জানা যায়, সম্প্রতি গঠন করা হয়েছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা ছাত্রদলের আহবায়ক কমিটি। সেই কমিটির সদস্য সচিব হিসেবে মনোনীত হয়েছেন মোহসীন হৃদয়। এরআগে তিনি সদর উপজেলা ছাত্রদলের আহবায়ক ছিলেন। ছাত্রদলের সদস্য সচিব মনোনীত হওয়ার পর থেকে বিভিন্ন মানবিক কাজে সম্পৃক্ত করার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন হৃদয়। এরই অংশ হিসেবে পবিত্র মাহে রমজানের প্রথম দিক থেকে সেহরির সময় নিজে তার সহকর্মীদের সাথে নিয়ে ছিন্নমূলে ফুটপাতে ঘুমিয়ে থাকা হতদরিদ্র মানুষের মাঝে খাবার বিতরণ করে যাচ্ছেন। জেলা শহরের কাউতুলী মোড়, রেলওয়ে স্টেশন, টিএ রোড ও কোর্ট রোড সহ একেক দিন একেক এলাকায় এসব খাবার নিজ হাতে বিতরণ করছেন। প্রতিদিন সহপাঠীদের সাথে নিয়ে মোটরসাইকেলে ঘুরে ঘুরে হতদরিদ্র, ভিক্ষুক ও রিকশা চালকদের মাঝে ইফতার বিতরণ করে যাচ্ছেন।

webnewsdesign.com

এছাড়া আসন্ন ঈদুল ফিতরকে সামনে রেখে পথ শিশু ও হতদরিদ্র পরিবার গুলোর পাশে দাঁড়িয়েছেন জেলা ছাত্রদলের সদস্য সচিব মোহসীন হৃদয়। পথ শিশুদের সাথে ঈদ আনন্দ ভাগাভাগি করে নিতে ২৫জন শিশুকে ঈদের নতুন কাপড় উপহার দিয়েছেন। পাশাপাশি হতদরিদ্র পরিবারকে ঈদের দিনের বাজার সেমাই, দুধ, চিনি, পোলাও চাল বিতরণ করেন।

এবিষয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা ছাত্রদলের সদস্য সচিব মোহসীন হৃদয় বলেন, আগামীর রাষ্ট্র নায়ক তারেক রহমানের নির্দেশনায় অসহায় ও হতদরিদ্র মানুষের পাশে নিজের সামর্থ অনুযায়ী দাঁড়ানোর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। আমার যতদিন সামর্থ্য আছে এসব অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়াব এবং সাধারণ মানুষের কল্যাণে কাজ করে যাব। এতে যদি অসহায় একটি মানুষের মুখে হাসি ফুটে, তাহলে আমি খুশি। এসব হতদরিদ্র ছিন্নমূলের মানুষের পাশে সবারই যার যার অবস্থান থেকে দাঁড়ানো উচিৎ।

মন্তব্য করুন

Development by: webnewsdesign.com