ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ট্রেনের দূর্ভোগ লাঘবে গণপূর্তমন্ত্রীর কাছে জেলা নাগরিক ফোরামের স্মারকলিপি

সোমবার, ১৮ মার্চ ২০২৪ | ১:০০ পূর্বাহ্ণ |

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ট্রেনের দূর্ভোগ লাঘবে গণপূর্তমন্ত্রীর কাছে জেলা নাগরিক ফোরামের স্মারকলিপি
Spread the love

ঢাকা-ব্রাহ্মণবাড়িয়া-ঢাকা রুটে নতুন ট্রেন সার্ভিস চালু করণ, আন্তঃনগর বিজয় ও কালনী এক্সপ্রেসের ব্রাহ্মণবাড়িয়া রেল স্টেশনে যাত্রা বিরতি ও বিদ্যমান ট্রেনসমূহের আসন সংখ্যা বৃদ্ধি করা বিষয়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, জননেত্রী শেখ হাসিনার  অনুশাসন দ্রুত বাস্তবায়নের দাবিতে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা র আ ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী এমপির কাছে স্মারকলিপি প্রদান জেলা নাগরিক ফোরাম, ব্রাহ্মণবাড়িয়া।

রোববার (১৭ মার্চ) বিকালে স্মারকলিপি প্রদান করে সংগঠনের সভাপতি সাংবাদিক পীযূষ কান্তি আচার্য ও সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা রতন কান্তি দত্ত, সিনিয়র সহ-সভাপতি আতাউর রহমান শাহীন, ফয়সাল আহমেদ ওয়াকার,  হাবিবুর রহমান পারভেজ, অ্যাডভোকেট উত্তম কুমার দাস প্রমুখ।

webnewsdesign.com

প্রসংগত ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলাবাসীর দীর্ঘদিনের এই দাবির পক্ষে জেলা নাগরিক ফোরাম, ব্রাহ্মণবাড়িয়া বিভিন্ন সময় সভা-সমাবেশ ও মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে। একপর্যায়ে গত ১১ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ সনে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার জেলা প্রশাসক মহোদয়ের মাধ্যমে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বরাবর এক স্মারকলিপি প্রদান করে।  উক্ত স্মারকলিপির প্রেক্ষাপটে বিগত ২০২৩ সালের ৫ এপ্রিল মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ, মাঠ প্রশাসন সংযোগ অধিশাখার স্মারক নং ০৪.০০.০০০০.৫১২.১৬.০০২.১৮.১০১-এর এক প্রজ্ঞাপনে জানানো হয় যে, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, জননেত্রী শেখ হাসিনা ব্রাহ্মণবাড়িয়াবাসীর রেল ভ্রমণের দুর্দশা লাঘবে জেলাবাসীর এই প্রাণের দাবি বাস্তবায়নের সদয় সম্মতি দিয়েছেন।

তারপর থেকে ব্রাহ্মণবাড়িয়াবাসী এই দাবিটির বাস্তবায়ন দেখার জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছে। কিন্তু এগারা মাস অতিক্রান্ত হলেও এখন পর্যন্ত মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর এই নির্দেশনার বাস্তবায়ন না হওয়ায় ব্রাহ্মণবাড়িয়াবাসী ঢাকা-চট্টগ্রামসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে যাতায়াত নিয়ে অনেক দুর্ভোগ পোহাচ্ছে। সংগঠনটি-এর পূর্বেও ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসক মহোদয়ের কাছেও স্মারকলিপি প্রদান করেছিল।

মন্তব্য করুন

Development by: webnewsdesign.com