বাঞ্ছারামপুরে পা কেটে নেওয়া সেই স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা গ্রেফতার

শুক্রবার, ২৬ এপ্রিল ২০১৯ | ৬:১০ অপরাহ্ণ | 337 বার

বাঞ্ছারামপুরে পা কেটে নেওয়া সেই স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা গ্রেফতার

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বাঞ্ছারামপুরে পূর্ব শত্রুতার জেরে কালা মিয়া নামের এক ব্যক্তির পা কর্তন করে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগে উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাবেক সহ-সভাপতি আবুল বাশারকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার মধ্যরাতে নারায়ণগঞ্জ জেলার সানারপাড় থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। এসময় এই ঘটনার সাথে জড়িত থাকায় মনির হোসেন মেম্বার ও দেলওয়ার হোসেন (ধন মিয়া) কে গ্রেফতার করা হয়।


বিষয়টি নিশ্চিত করে বাঞ্ছারামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সালাউদ্দিন চৌধুরী জানান, নায়ায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশের সহযোগিতায় তাদের গ্রেফতার করা হয়েছে। আটককৃতদের বাঞ্ছারামপুরে নিয়ে আসা হয়েছে। আদালতে হাজির করে ৭দিনের রিমান্ড চাওয়া হবে।

বাঞ্ছারামপুর উপজেলার রূপসদী গ্রামের কালা মিয়ার সাথে দীর্ঘদিন ধরে উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ-সভাপতি আবুল বাশারের বিরোধ চলে আসছিল। সেই বিরোধের জের ধরেই আবুল বাশার ও তার লোকজন গত ১৯শে এপ্রিল বিকেলে কালা মিয়া(৪৫) ও তার ছেলে বিল্পব মিয়া (১৯) কে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে টেঁটাবিদ্ধ করে। পরে মাটিতে লুটিয়ে পড়লে কালা মিয়াকে দুইটি টেঁটাবিদ্ধ করে। এসময় কালা মিয়াকে দা দিয়ে কুপিয়ে পায়ের একাংশ নিয়ে যায় ও তার ছেলে বিপ্লবের দুই পায়ের রগ কর্তন করে দুইটি টেঁটাবিদ্ধ করে ফেলে রেখে যায়। তাদেরকে প্রত্যক্ষদর্শীরা তাৎক্ষণিকভাবে উদ্ধার করে বাঞ্ছারামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। অতিরিক্ত রক্ত ক্ষরনে কালা মিয়া ও তার ছেলে বিপ্লবের শারিরীক অবস্থার অবনতি হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

এ ঘটনায় কালা মিয়ার স্ত্রী সালমা আক্তার বাদী হয়ে বাঞ্ছারামপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। আবুল বাশারকে প্রধান আসামী করে ১৫জনের নাম উল্লেখ করে মামলা দায়ের করা হয়। এতে অজ্ঞাত আসামী করা হয়েছে আরো ১৫/২০জনকে।

এ ঘটনায় জড়িত থাকায় স্বেচ্ছাসেবকলীগ বাঞ্ছারামপুর উপজেলা শাখা বহিষ্কার করে সহ সভাপতি আবুল বাশারকে।


মন্তব্য করুন

Development by: webnewsdesign.com