বখাটে ছেলের অত্যাচার থেকে রেহাই চান বৃদ্ধ বাবা-মা

শুক্রবার, ০৪ অক্টোবর ২০১৯ | ১:০২ পূর্বাহ্ণ | 65 বার

বখাটে ছেলের অত্যাচার থেকে রেহাই চান বৃদ্ধ বাবা-মা
বৃদ্ধ নূর মিয়া ও তার স্ত্রী

একটি সন্তানের জন্য কতো আরাধনা করেন বাবা-মা। সেই সন্তান পৃথিবীতে আসার আগেই স্বপ্ন বুনতে থাকেন তারা। জন্ম নেওয়ার পর যখন এই সন্তানের মুখটি বাবা-মা দেখেন তখন স্বর্গীয় সুখ লাভ করেন। পরিবারের সদস্যদের প্রত্যাশাটা ছেলে সন্তানের জন্যই বেশি থাকেন। কিন্তু ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগরের নূর মিয়ার ৫ছেলে সন্তান থেকেও নিজ বাড়িতে অসহায়।

বখাটে ছেলের অত্যাচারে বাড়ি ছেড়েছেন অসহায় নূর মিয়া ও তার স্ত্রী। উপজেলার বুধন্তী ইউনিয়নের খাতাবাড়ী গ্রামের বৃদ্ধ নূর মিয়া ও তার বৃদ্ধা স্ত্রী আনোয়ারা খাতুন অসহায়ভাবে দিন যাপন করছেন। পাড়ার মাতাব্বরদের কাছে ধরনা দিয়েও কোন সুরাহা না পেয়ে অবশেষে আইনের আশ্রয় নিয়েছে এই দম্পত্তি।

মামলা সূত্রে জানা যায়, নূর মিয়ার ৫ছেলে। এরমধ্যে পেশাগত কারণে বাড়ির থাকেন দুইজন। বাড়িতে থাকেন বাকি ৩জন। কিন্তু কোন সন্তানই নূর মিয়া ও তার স্ত্রীর দায়িত্ব নিতে চান না। শুধু তা ই নয়, মাদকাসক্ত হয়ে টাকার জন্য তাদের চতুর্থ ছেলে মোঃ আনু মিয়া দীর্ঘ ধরে তাদেরকে শারীরিক ও মানসিক ভাবে অত্যাচার করে আসছে। কিছুদিন পূর্বে ধারালো অস্ত্র দিয়ে তার জন্মদাতা পিতা নূর মিয়াকে আক্রমন করে গুরুতর আহত করলে তার আঘাতপ্রাপ্ত স্থানে তিনটি সেলাই করতে হয়। সমাজের কিছু লোক বিচার ব্যবস্থা করবে বলে আশ্বাস দিয়েও কোন বিচারের ব্যবস্থা করেনি। তার ছেলে আনু মিয়ার নির্যাতন দিন দিন বাড়তে থাকলে উপায় না দেখে জীবন বাঁচাতে আইনের আশ্রয় নেয় বৃদ্ধ নূর মিয়া ও তার অসুস্থ স্ত্রী।
নুর মিয়া জানান, আমি একজন অসহায় মানুষ ছেলের অত্যাচারে আজ আমি ঘর ছাড়া। কয়েকদিন আগে আমার বুকের মধ্যে উঠে ‘দা’ নিয়ে আমাকে জবাই করে মেরে ফেলার চেষ্টা করে আনু মিয়া। আশেপাশের লোকজন এসে আমাকে উদ্ধার করে। আমি কোন কথা বললেই মারধর করে।
নূর মিয়ার স্ত্রী আনোয়ারা খাতুন জানান, আমাকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দিলে মারাত্মকভাবে আহত হয়ে দীর্ঘদিন বিছানায় ছিলাম। এখন পর্যন্ত সুস্থ হয়ে উঠতে পারেনি। তার অত্যাচারে আমরা ঘর ছেড়েছি। আমরা এর বিচার চাই।

এ ব্যাপারে বিজয়নগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফয়জুল আজিম নোমান বলেন, অভিযোগটি পেয়েছি বিষয়টি অত্যন্ত দুঃখজনক। অসহায় মানুষদের বিজয়নগর থানা সর্বোচ্চ সহযোগীতা করবে। আমরা খোঁজ নিয়ে দ্রুত এ বিষয়ে ব্যবস্থা গ্রহণ করব।

-রাফি/-

মন্তব্য করুন

Development by: webnewsdesign.com