পরিবেশ রক্ষায় ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় চায়ের দোকানিরা বিনামূল্যে পেল কাঁচের কাপ

রবিবার, ০৫ জুন ২০২২ | ৯:৩৩ অপরাহ্ণ | 105 বার

পরিবেশ রক্ষায় ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় চায়ের দোকানিরা বিনামূল্যে পেল কাঁচের কাপ

বিশ্ব পরিবেশ দিবসে নোঙর ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কমিটির উদ্যোগে জনসচেতনতা ও পরিবেশ রক্ষার্থে শহরের বিভিন্ন চায়ের দোকানে বিনামূল্যে কাঁচের পেয়ালা (কাপ) বিতরণ করেন। পাশাপাশি চায়ের দোকানে থাকা প্লাস্টিক পেয়ালাগুলো তারা উদ্ধার করেন।


রবিবার ( ৫জুন) বিকালে নোঙর ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কমিটির সভাপতি শামীম আহমেদ ও সাধারণ সম্পাদক খালেদা মুন্নীর নেতৃত্বে শহরের কোর্ট রোড থেকে শুরু করে সদর হাসপাতাল রোড, প্রেস ক্লাব, জেল রোড মোড়, পুরাতন কাচারী পুকুর পাড়, আধুনিক পৌর সুপার মার্কেট, ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভা ও বঙ্গবন্ধু স্কয়ারে অবস্থিত চায়ের দোকানে বিনামূল্যে কাঁচের পেয়ালা বিতরণ করা হয়। বিষয়টি শহরের মধ্যে এক নতুন মাত্রা যোগ হয়েছে যা চায়ের দোকানীদের পাশাপাশি শহরের মানুষও পরিবেশ এবং স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর প্লাস্টিক পেয়ালা ব্যবহার না করার সমর্থন জানিয়েছেন। চায়ের দোকানের মালিকরা জানান, আমরা আসলে প্লাস্টিক ব্যবহার করতে চাই না, এটা ব্যবহার, বহন ও সহজলভ্য বলে আমরা এটা ব্যবহার করি।

এ বিষয়ে নদী ও প্রাণ-প্রকৃতি সুরক্ষা সামাজিক সংগঠন নোঙর ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কমিটির সভাপতি শামীম আহমেদ বলেন, শুধুমাত্র একটি পণ্যের অবাধ ব্যবহারে পরিবেশ ও জনস্বাস্থ্যে কী পরিমাণ ক্ষতি হচ্ছে তা জানান দেয়ার ক্ষুদ্র প্রয়াস করে যাচ্ছি। কাঁচের কাপের পরিবর্তে দোকানিরা এগিয়ে দিচ্ছেন গরম চায়ের প্লাস্টিক কাপ। চা শেষে কাপগুলো ছুড়ে ফেলা হচ্ছে রাস্তা, ফুটপাত ও ড্রেনে, ড্রেন থেকে খাল হয়ে নদীগর্ভে।

webnewsdesign.com

এসব প্লাস্টিক কাপে চা খাওয়ার কারণে স্বাস্থ‌্যহানি ঘটতে পারে, ক‌্যানসারেরও ঝুঁকি রয়েছে। প্লাস্টিকের কাপ ও পলিথিনে নদী ও প্রাণ-প্রকৃতির ভারসাম‌্য নষ্ট হচ্ছে। বিশ্ব পরিবেশ দিবসে প্লাস্টিক ও পলিথিন বন্ধে জনসচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে শহরের বিভিন্ন চায়ের দোকানে বিনামূল্যে কাঁচের কাপ বিতরণ করেছি।

 এসময় উপস্থিত ছিলেন তিতাস বার্তা পত্রিকার সম্পাদক এম.এ মতিন শানু, হারুন আল রশিদ,বিবি নিউজের হাউজ ইনচার্জ সজিবুর রহমান, নোঙর অর্থ ও আইসিটি সম্পাদক শিপন কর্মকার, প্রচার সম্পাদক সোহেল খান, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক মোশারফ হোসেন, নির্বাহী সদস্য সোহেল আহাদ, জেলা সদস্য সাঈদুর রহমান জুয়েল, সুশান্ত পাল, মো. রয়েল মিয়া, রোকেয়া রহমান, রাজঘাট ইউনিট  সমন্বয়ক মোর্শেদ মিয়া প্রমূখ।


মন্তব্য করুন

Development by: webnewsdesign.com