আপডেট

x

চাঁদাবাজির অভিযোগ,আখাউড়া বন্দরে অঘোষিত ট্রাক ধর্মঘট

মঙ্গলবার, ১৯ অক্টোবর ২০২১ | ১১:৫৩ অপরাহ্ণ | 73 বার

চাঁদাবাজির অভিযোগ,আখাউড়া বন্দরে অঘোষিত ট্রাক ধর্মঘট

পণ্যবাহী ট্রাক থেকে চাঁদাবাজির অভিযোগে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া স্থলবন্দরে অনির্দিষ্টকালের অঘোষিত ধর্মঘট পালন করেছে জেলা ট্রাক মালিক গ্রুপ এবং জেলা ট্রাক ও ট্রাংকলরী শ্রমিক ইউনিয়ন।


মঙ্গলবার (১৯ অক্টোবর) সকাল থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য পর্যন্ত আখাউড়া স্থলবন্দরে ভারত থেকে আমদানিকৃত ও রপ্তানি করা মালামাল পরিবহন করতে বন্ধ রাখে তারা। এর ফলে এই বন্দরে অর্ধশতাধিক ভারতীয় পণ্যবাহী ট্রাক বন্দরে আটকা পড়েছে।

webnewsdesign.com

জেলা ট্রাক মালিক গ্রুপ এবং জেলা ট্রাক ও ট্রাংকলরী শ্রমিক ইউনিয়ন সূত্রে জানা যায়, আখাউড়া স্থলবন্দরের যাতায়াতকারি ট্রাক চালক, মালিক, শ্রমিক ও ব্যবসায়ীরা কতিপয় চাঁদাবাজের জিম্মি। এর নেতৃত্ব দিয়ে আসছেন আখাউড়া পৌর মেয়রের চাচাতো ভাই ও শ্রমিকলীগের সভাপতি লাকসু খলিফা। প্রভাবশালী এই চক্রের ১১ জনের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজির অভিযোগ এনে গত ৭ অক্টোবর ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপার বরাবর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে স্মারকলিপি জমা দিয়েছেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার ট্রাক শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক মো. সাখাওয়াত হোসেন খোকন বলেন, আমরা শ্রমিক নেতা নামদারি কতিপর চাঁদাবাজের কাছে জিম্মি হয়ে পড়েছি। এর নেতৃত্ব দিচ্ছেন লাকসু খলিফা। আমরা প্রশাসনের কাছে প্রভাবশালী চক্রের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি বন্ধ চেয়ে ৭ দিনের আল্টিমেটাম দিয়েছিলাম। কিন্তু ওই চাঁদাবাজদের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা না নেয়ায় আমরা আখাউড়া স্থলবন্দরে পণ্য পরিবহন অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ করেছি। যদি এর কোনো সমাধান না হয় তাহলে সারাদেশে পণ্য পরিবহন বন্ধ রাখা হবে।

এদিকে, বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে বন্দর এলাকা থেকে ফেরার পথে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার ট্রাক শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক মো. সাখাওয়াত হোসেন খোকনকে ধাওয়া করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

সন্ধ্যার দিকে, সাধারণ সম্পাদক মো. সাখাওয়াত হোসেন খোকন অভিযোগ করে বলেন, বিকেলে সিএন্ডএফ এজেন্ট এসোসিয়েশনের সভাপতি মোবারক হোসেন আমাদের খবর দেয় সমস্যা সমাধানের জন্য আলোচনা করতে। সেখানে লাকসুর লোকজন আমাদের উপর হামলা করা চেষ্টা করে। সেখান থেকে পুলিশের সহায়তায় রক্ষা পাই, কোড্ডা এলাকায় লাকসুর লোকজন পুনরায় হামলার চেষ্টা করলে আমিসহ তিনজন প্রাণে রক্ষা করে ফিরে আসি।


এই বিষয়ে যোগাযোগ করা হলে আখাউড়া শ্রমিকলীগের সভাপতি লাকসু খলিফা বলেন, আমি চাঁদাবাজি করি, এমন কথা কেউ বলতে পারবে না। ট্রাক শ্রমিক নেতা খোকন তার নিজের স্বার্থ হাসিল করতে মিথ্যা অভিযোগ করছেন। তাদের উপর হামলা করার তো কোন প্রশ্ন আসে না, সব মিথ্যা।

আখাউড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান জানান, কাউকে হামলা করা হয়েছে, এমন কোন খবর আমাদের জানা নেই।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসক (ডিসি) হায়াত উদ দৌলা খান সাংবাদিকদের বলেন, ইতোমধ্যে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে চাঁদাবাজদের বিরুদ্ধে আইনগতভাবে ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ প্রদান করা হয়েছে। আখাউড়া স্থলবন্দরে কোন চাঁদাবাজ থাকবে না।

মন্তব্য করুন

Development by: webnewsdesign.com