ক্রান্তিলগ্নে অসহায় মানুষের কথা ভেবে একদামে ঔষধ বিক্রয় বন্ধ করুন-ছাত্রলীগ

রবিবার, ০৫ এপ্রিল ২০২০ | ১২:১৯ অপরাহ্ণ | 472 বার

ক্রান্তিলগ্নে অসহায় মানুষের কথা ভেবে একদামে ঔষধ বিক্রয় বন্ধ করুন-ছাত্রলীগ

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলায় ঔষধের ফার্মেসী গুলোতে প্যাকেটে গায়ে লেখা মূল্য ব্যতীত কেউ ঔষধ বিক্রয় করেন না। আগে ফার্মেসীগুলো থেকে ঔষধ ক্রয় করলে ৫-১০শতাংশ কম দামে বিক্রয় করতো। কিন্তু বাংলাদেশ কেমিস্ট এন্ড ড্রাগিস্ট সমিতি ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা শাখা কোন প্রকার ছাড় ছাড়া ঔষধ বিক্রয় করতে নির্দেশনা দিয়েছে। যদি কেউ ছাড় দিয়ে কম মূল্যে ঔষধ বিক্রয় করছে, তাহলে তার বিরুদ্ধে সমিতি থেকে ব্যবস্থা নিচ্ছেন৷ ফলে তারা একদরে ঔষধ বিক্রয় করতে বাধ্য হচ্ছে।

করোনাভাইরাসের প্রভাবে বর্তমান পরিস্থিতিতে যেন ঔষধের মূল্য ছাড় দিয়ে এমআরপি’র চেয়ে কম দামে পূর্বের মতো ফার্মেসী গুলো ঔষধ বিক্রয় করেন দাবি জানিয়েছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা ছাত্রলীগ।


ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা ছাত্রলীগের পক্ষে এই দাবি জানান সভাপতি রবিউল হোসেন রুবেল। শনিবার রাতে তিনি তার ফেসবুকে এই দাবি জানিয়ে একটি পোস্ট দিয়েছেন।

ফেসবুক স্ট্যাটাসে তিনি লিখেন—
জেলা ছাত্রলীগ এর পক্ষ থেকে দাবি জানাচ্ছি, জাতির এই ক্রান্তিলগ্নে ঔষধ এর মূল্য এমআরপি ( মার্কেট রিটেইল প্রাইস) থেকে কিছুটা কম রাখা হোক। করোনাভাইরাসের প্রভাবে বাংলাদেশ সহ সারা বিশ্বের মানুষ আজ অর্থনৈতিক ভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে। দেশের সাধারণ খেটে খাওয়া মানুষ ভাইরাসের থেকে রক্ষায় সচেতনতায় নিজ গৃহে বাস করে অনেকে কর্মহীন হয়ে পড়েছে। এসব অসহায়-দরিদ্র মানুষের পাশে সবাই যার যার অবস্থান থেকে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দেওয়া চেষ্টা করে চলেছে। দেশের এই সংকটময় মুহূর্তে ক্লান্তি লগ্নে ঔষধ ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দের কাছে আকুল আবেদন, আপনারা এমআরপির নির্দেশনা বাতিল করুন। সাধারণ মানুষের ঔষধ ক্রয় ক্ষমতার মধ্যে রাখুন। তাহলে ঔষধের ফার্মেসীগুলো হয়তো সীমিত লভ্যাংশ রেখে অসহায়-দরিদ্র মানুষের কাছে ঔষধ বিক্রয় করে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিতে পারবে।

পাশাপাশি প্রতিটি ফার্মেসীতে ভেজাল মুক্ত ঔষধ বিক্রিও নিশ্চিত করা হোক। এই সময়ে জনগণ অাপনাদের কাছে এই সেবা টুকু প্রত্যাশা করতে পারে, জনগণ ও দেশসেবার স্বার্থে এই কয়েকটা দিন না হয় একটু লাভ কমই করলেন।

মন্তব্য করুন

Development by: webnewsdesign.com